আলোচিত সংবাদ
সত্যের কথা বলে

দুই সাংবাদিককে মারধর করলেন সমাজসেবা কর্মকর্তা

মেহেরপুরে ডিবিসির জেলা প্রতিনিধি আবু আক্তার করণ ও বাংলাদেশ রয়টার্সের জেলা প্রতিনিধি জাকির হোসেনকে মারধর করে ক্যামেরা ভাঙচুর করেছেন জেলা সমাজসেবা কর্মকর্তা আব্দুল কাদেরসহ কয়েকজন। রোববার (০৮ নভেম্বর) দুপুরে সমাজসেবা অফিসে পেশাগত দায়িত্ব পালনকালে তাদের মারধর করা হয়। একই সঙ্গে তাদের ক্যামেরা ভাঙচুর করা হয়।

মারধরের শিকার সাংবাদিক আবু আক্তার করণ ও জাকির হোসেন জানান, সংবাদ সংগ্রহের জন্য জেলা সমাজসেবা অফিসে যান তারা। পরে সমাজসেবা কর্মকর্তা আব্দুল কাদের গোপন কক্ষে নিয়ে তাদের আটকে রাখেন। এরপর আব্দুল কাদের একই অফিসের প্রবেশন অফিসার সাজ্জাদ হোসেন ও আব্দুল কাদেরের ব্যক্তিগত ড্রাইভার মিলনসহ বেশ কয়েকজন তাদের মারধর করেন। পরে তাদের ক্যামেরা ভেঙে ফেলেন তারা।

মেহেরপুর জেলা সমাজসেবা অধিদফতরের উপপরিচালক মো. আব্দুল কাদেরের বিরুদ্ধে সরকারি গাড়ি ব্যক্তিগত কাজে ব্যবহার, হিজড়া প্রশিক্ষণের ভাতা আত্মসাৎ এবং অফিসে বেডরুম ব্যবহারের অভিযোগ রয়েছে। এসব বিষয়ে জানতে রোববার দুপুরে সমাজসেবা অধিদফতরের উপপরিচালকের কার্যালয়ে গেলে আব্দুল কাদের সাংবাদিকদের দেখে ক্ষেপে যান।

পরে কয়েকজন স্টাফ ও গাড়িচালককে দিয়ে দুই সাংবাদিককে অফিসের একটি কক্ষে ডেকে নিয়ে আটকে রেখে মারধর করেন। খবর পেয়ে মেহেরপুর প্রেস ক্লাবের সাংবাদিকরা গিয়ে তাদের উদ্ধার করেন।

এ ঘটনায় মেহেরপুর প্রতিনিধি আবু আক্তার করণ বাদী হয়ে মেহেরপুর সদর থানায় উপপরিচালকসহ কয়েকজনকে আসামি করে মামলা করেছেন।

সদর থানা পুলিশের ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) শাহ দারা খান মামলার বিষয়টি নিশ্চিত করে বলেন, তদন্ত করে আইনগত ব্যবস্থা গ্রহণ করা হবে।

মেহেরপুরের জেলা প্রশাসক (ডিসি) ড. মুনসুর আলম খান বলেন, আমি বিষয়টি শুনেছি। বিস্তারিত জেনে প্রয়োজনীয় ব্যবস্থা নেয়া হবে।

উত্তর দিন

আপনার ইমেইল ঠিকানা প্রচার করা হবে না.